বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

আরিফ আজাদ: Arif Azad Books

  আরিফ আজাদ কর্তৃক রচিত ইসলামীক pdf বই অনলাইনে পড়তে নামের এবং ডাউনলোড করতে নিচে এই      চিহ্নের উপর ক্লিক করুন।
লেখক পরিচিতিঃ
 ব্যক্তিগত ও শিক্ষাজীবনঃ লেখক আরিফ আজাদ ১৯৯০ সালের ৭ জানুয়ারি,চট্টগ্রাম জেলায় জন্মগ্রহন করেন। তিনি মাধ্যমিক পাশ করেন চট্টগ্রাম জেলা স্কুল থেকে। একটি সরকারি কলেজ থেকে তিনি উচ্চ মাধ্যমিক শেষ করে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিসংখ্যান বিভাগে ভর্তি হন এবং এখান থেকে উচ্চশিক্ষা শেষ করেন।

সাহিত্যিক জীবনঃ তরুণ এই লেখক একাদশ শ্রেনীতে থাকাকালীন লেখালেখি শুরু করেন।তবে তার লেখা প্রথম বই প্যারাডক্সিক্যাল সাজিদ ২০১৭ সালে একুশে বইমেলায় প্রকাশিত হলে তা ব্যপক আলোড়নের সৃষ্টি করে। তারপর থেকে নিয়মিত প্রকাশিত হতে থাকে আরিফ আজাদের অন্যান্য বইগুলো। লেখালেখির ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই আরিফ আজাদ এর বই সমূহ পাঠক মহলে ব্যাপক সাড়া ফেলে।


ব্যক্তিগত ছবি ও জীবনঃ তার ব্যক্তিগত ছবি তিনি ইন্টারনেটে শেয়ার করেন না, তবে বই মেলাতে তিনি মাঝে মধ্যে এসেছেন, তখন কিছু মানুষের সাথে তার সাক্ষাৎ হয়েছে, তিনি তাদের সাথেও ছবি তুলেননি। তার ফেসবুক গ্রুপে তিনি তার ব্যক্তিগত ধারণা শেয়ার করে থাকেন। তিনি দেশের বিভিন্ন জাতীয় উলামা সম্মেলনে অংশগ্রহণ করে থাকেন।


তিনি "আস সাদিক ফাউন্ডেশন" নামে একটি দাতব্য প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছেন।


উল্লেখযোগ্য বইসমূহঃ

১) প্যারাডক্সিক্যাল সাজিদ-১

প্যারাডক্সিক্যাল সাজিদ ২০১৭ সালের একুশে বইমেলায় প্রকাশ পায়। বইটির কেন্দ্রীয় চরিত্র সাজিদ বিভিন্ন কথোপকথনের মধ্যে তার নাস্তিক বন্ধুর অবিশ্বাসকে বিজ্ঞানসম্মত নানা যুক্তিতর্কের মাধ্যমে খণ্ডন করে। আর এসব কথোপকথনের মধ্য দিয়েই বইটিতে অবিশ্বাসীদের অনেক যুক্তি খণ্ডন করেছেন লেখক। বইটি প্রকাশের পরপরই তুমুল জনপ্রিয়তা পায়। এটি ইংরেজি ভাষা ও অসমীয়া ভাষায় অনূদিতও হয়েছে। ২০১৭- এর একুশে বইমেলায় এটি ছিল সর্বাধিক বিক্রিত বই।


২) প্যারাডক্সিক্যাল সাজিদ-২

সাজিদ-১ এর ধারাবাহিকতায় ২০১৯ সালের একুশে বইমেলায় প্রকাশিত হয় প্যারাডক্সিক্যাল সাজিদ-২। প্রকাশের প্রথমদিনেই বইটির সকল প্রিন্ট বিক্রি হয়ে যায়। মাত্র ৩ দিনে ৮ হাজার কপি বিক্রি হয় বইটির। তবে অপ্রত্যাশিত ত্রুটির কারনে ৩য় দিনেই বাংলা একাডেমি কর্তৃক বইটির বিক্রি বন্ধ হয়ে যায়।


৩) বেলা ফুরাবার আগে

২০২০ সালে প্রকাশিত 'বেলা ফুরাবার আগে' আরিফ আজাদের ৪র্থ মৌলিক বই। বইটিতে লেখক আরিফ আজাদ তরুন মনের আকুপাকু করা এবং সমাজে চলমান প্রশ্ন গুলোর সহজ, সরল,যৌক্তিক, বিশ্লেষণী সমাধান এবং ধর্মীয় দৃষ্টিকোণ থেকে ব্যাখ্যা করেছেন। এবারের বইমেলাতেও চমক হিসেবে ছিল বেলা ফুরাবার আগে বইটি।


 ৪) আরজ আলীর সমীপে

গ্রাম্য একজন স্বশিক্ষিত নাস্তিক ব্যক্তির ইসলাম সম্পর্কে ভুল ধারণা ভেঙ্গে দেন, ও ইসলামের সমালোচনাকারীদের জবাব দেন।


আলোচনা ও সমালোচনাঃ লেখক আরিফ আজাদ কে নিয়ে যেমন আলোচনাও হয়েছে তেমনি বেশ সমালোচনাও হয়েছে। লেখক ডাঃ শামসুল আরেফিন বলেন “আরিফ আজাদ একজন জীবন্ত আলোকবর্তিকা”। গার্ডিয়ান প্রকাশনী আরিফ আজাদের পরিচয় দিতে গিয়ে লিখেছে, “তিনি বিশ্বাস নিয়ে লেখেন, অবিশ্বাসের আয়না চূর্ণবিচুর্ণ করেন।” অপরদিকে কিছু মুক্তমনা ও বিজ্ঞানবিষয়ক ব্লগে আরিফ আজাদকে নিয়ে সমালোচনা করা হয়েছে। ব্লগিং সাইট বিজ্ঞানযাত্রা থেকে দাবি করা হয় আরিফ আজাদ তার সাজিদ সিরিজের বইয়ে বিবর্তন নিয়ে ভুল ব্যাখ্যা দিয়েছেন।


ব্যক্তিগত লিঙ্কঃ
আরিফ আজাদ ( ফেসবুক)
'আরিফ আজাদ' বলেন ( ফেসবুক গ্রুপ)
Arif Azad (@arifazadbd) | Twitter ( টুইটার)
আরিফ আজাদ ( ফেসবুক পেইজ)

আবার ভিজিট করবেন !!! ধন্যবাদ

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

মনে রাখবেন: এই ব্লগের কোনও সদস্যই কোনও মন্তব্য পোস্ট করতে পারে৷

Whatsapp Button works on Mobile Device only